Bangladeshi Movie News

Live From Dhaka আসছে ঢাকায়

ইন্টারন্যাশনাল ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল পৃথিবীর কোণা কোণা থেকে সিনেমা বাছাই করে কিন্তু দুঃখের ব্যাপার হলেও সত্যি যে বাংলাদেশের নাম সেখানে খুব কম শোনা যায়। হ্যাঁ, অনেক বাংলাদেশী নির্মাতাই হয়তো কথাটা শুনে একটু হলেও বিরক্ত হবেন কারন আমি জানি বাংলা অনেক নির্মাতারাই তাঁদের সিনেমা বিভিন্ন ফেস্টিভ্যালে এখন পাঠাচ্ছেন। কিন্তু এই কথা অগ্রাহ্য করার উপায় নেই যে ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল গুলোর মেজর কোন ক্যাটেগরি কিংবা A লাইনার কোনো ফেস্টিভ্যালে বাংলা সিনেমা কিংবা নির্মাতাদের নাম শোনা যায়না বললেই চলে।

তারেক মাসুদ এর নির্মাণে “মাটির ময়না” সিনেমাটি ছিলো আন্তর্জাতিক ক্রিটিক্সস এর নির্বাচনে “FIPRESCI Prize in the Directors” ২০০২ সালে কানে এটা ছিলো কম্পিটিশনের বাইরের একটি কম্পিটিশন যা প্রধান কম্পিটিশনের কোনো অংশ ছিলো না। এ ছাড়াও “সূর্য দীঘল বাড়ি” এবং “চাকা” বিভিন্ন ফেস্টিভ্যালে গিয়েছে। শেখ নিয়ামত আলী, মসিউদ্দিন শাকের, মোরশেদুল ইসলাম, আবু সাইদ এবং গোলাম রব্বানী বিপ্লব অনেক ফেস্টিভ্যালে ঘুরে বেরিয়েছেন। এগুলো অনেক আগের কথা, এখনও বাংলাদেশের সিনেমা আন্তর্জাতিক ভাবে পরিচিতি পাচ্ছে। এখন নির্মাতাদের কথা বললে এই ক্ষেত্রে উঠে আসে মোস্তফা সরোয়ার ফারুকী, কামার আহমেদ সিমন, আবু শাহেদ ইমন, রুবায়েত হোসেন, আমিরুল জিকো সহ অনেকে।







“Live from Dhaka” ইন্টারন্যাশনাল ফিল্ম ফেস্টিভ্যালে স্ক্রিং এর চান্স পেয়েছিলো। রোটেরডাম এবং সিঙ্গাপুর দুটি ইন্টারন্যাশনাল ফিল্ম ফেস্টিভ্যালেই সিনেমাটি দেখান হয়েছিলো। IFFR পৃথিবীর একটি অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল। আব্দুল্লাহ মোহাম্মাদ সাদ এর নির্মাণে “Live from Dhaka” ছিলো IFFR ফেস্টিভ্যালের ‘Bright Future’ ক্যাটেগরির বিজয়ি যা নিঃসন্দেহে আমাদের জন্য গর্বের বিষয়। ইউরোপিয়ান দেশ গুলোতে যখন এখনো বাংলাদেশ বলতে তাঁরা ভারতের একটা প্রদেশ মনে করে শুধুমাত্র আমাদের সংস্কৃতির , অবয়বের মিলের কারনে সেখানে আসলে এরকম সিনেমাগুলো দ্বারাই সম্ভব আমাদের পরিচিতি আলাদা ভাবে তুলে ধরার। “Live From Dhaka” সেই সত্যতা নিয়ে তৈরি করা একটি গল্পের সিনেমা।




নির্মাতা সাদ, তাঁর সিনেমায় আমাদের দেশের একটি সত্য নির্ভর গল্পের কথা তুলে ধরেছেন। একজন অক্ষম মানুষ যিনি তাঁর জীবনের প্রতি আশা হারিয়ে ফেলেছেন, ঢাকায় বসবাস করার স্পৃহা হারিয়ে ফেলেছেন। পরিবার, ভালোবাসা, প্রেম ও আর্থিক সবভাবে মানুষটি বঞ্চিত হয়ে গেছে। নির্মাতা সাদ খুব সুন্দর ও চাক্ষুসভাবেই ঢাকার দরিদ্রতাকে এবং নিরাশ চোখের স্বপ্ন তুলে ধরেছেন। সিনেমার গল্প ঠিক থাকলে যে অনেক বড় স্টার কাস্ট নেয়াটা অযাথাই টাকার অপ-ব্যবহার এটাও দেখিয়ে দিয়েছেন নির্মাতা। সিনেমার প্লট সম্পর্কে আরো বলতে হলে গল্পটি আসলে একজন কেন্দ্রীয় চরিত্র সাজ্জাদকে ঘিরে যে Dhaka Dream নিয়ে ঢাকায় বসবাসরত  ছিলেন। আর ১০টি মানুষের মত তারও ঢাকায় আরো ভালো থাকার স্ট্রাগল চলছিলো কিন্তু হঠাৎ করেই সব কিছু হাতের প্রতিকূলে যেতে শুরু করে। স্টক মার্কেট ধ্বসের কারনে প্রথম ধাক্কাটা আসে সাজ্জাদের জীবনে, সব টাকা খোয়া যাওয়ায় ধারের টাকা শোধে অক্ষম হয়ে পড়ে সাজ্জাদ, এর ভেতর সে জানতে পারে অপ্রত্যাশিত নিজের গার্লফ্রেন্ডের প্রেগন্যান্ট হওয়ার খবর। বড় বড় সব গডফাদারের কাছ থেকে নেয়া লোন চুকাবে নাকি নিজের গার্লফ্রেন্ড নিয়ে দৌড়াবে? তার উপর তাঁর হিরোয়িনের নেশার আক্রমন। সব মিলিয়ে সাজ্জাদের জীবন হয়ে উঠে ঢাকার নরক। তাই সাজ্জাদ ঠিক করে ঢাকা ছেড়ে সে পালাবে, পালিয়ে যাবে রাশিয়াতে। কিন্তু এত কিছুর ভিড়ে কি আদৌ সে পালাতে পারবে? দিবে তাঁকে কেউ পালাতে? জানার জন্য দেখতে হবে “Live From Dhaka”




“লাইভ ফ্রম ঢাকা” ২৯শে মার্চ মুক্তি পাচ্ছে। ঢাকার দর্শকরা দেখতে পারবেন স্টার সিনেপ্লেক্সে।
ট্রেইলার দেখে নিতে পারেন-

LIVE FROM DHAKA (2016) – Official Trailer

LIVE FROM DHAKA (2016) – Official Trailer

Julkaissut LIVE FROM DHAKA Lauantaina 29. lokakuuta 2016

You may also like...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *